ওপার বাংলা
জেলে প্রকাশিত হল কয়েদিদের লেখা প্রথম সংবাদপত্র
কাগজ ডেস্ক :
Published : Tuesday, 5 December, 2017 at 8:28 PM
জেলে প্রকাশিত হল কয়েদিদের লেখা প্রথম সংবাদপত্র পশ্চিম মেদিনীপুর সেন্ট্রাল জেল কেন্দ্রীয় সংশোধনাগার হয়ে গিয়েছে বেশ কয়েক বছর আগেই। ধীরে ধীরে পালটে গিয়েছে বন্দিদের অবস্থাও। জেলের ভিতরে বসেই তৈরি হল আলাদা জগৎ। বইল ‘খোলা হওয়া’।শুক্রবার থেকে মেদিনীপুর জেলের ভিতরে বন্দি থাকা ‘সাংবাদিক’ কয়েদিদের লেখা প্রথম সংবাদপত্র প্রকাশিত হল। যার পাঠকও বন্দিরাই৷ চোখের জল ফেলতে দেখা গেল যাবজ্জীবন সাজাপ্রাপ্ত বন্দি শিক্ষক তথা কাগজের সম্পাদকমন্ডলীর এক সদস্যকে।
শেষ ধাপ হিসেবে মুক্ত সংশোধনাগারের তকমাও জুড়তে চলেছে শীঘ্রই। তার আগে যা প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ করার, তা শুরু হয়ে গিয়েছে কারামন্ত্রীর পরিদর্শনের পরে৷
এই জেল থেকে একটি সাপ্তাহিক সংবাদপত্র প্রকাশ করার প্রস্তাব এসেছিল কয়েক মাস আগেই। সেইমতো শুক্রবার দিনের আলো দেখল সেই সংবাদপত্র। তা প্রকাশিত হল মেদিনীপুর সংশোধনাগারে। উদ্বোধক হলেন জেল সুপার দেবাশিস চক্রবর্তী। দু’ পাতার এই সংবাদপত্রের নাম ‘খোলা হাওয়া’। জেলের ভিতরে থাকা প্রায় চোদ্দোশো বন্দিকে সাতটি ব্লকে ভাগ করে রাখা হয়েছে। যাদের মধ্যে একশোর কিছু বেশি মহিলা বন্দিও রয়েছেন৷
সুবিশাল এই জেলের ভিতরের পরিবেশ, সেখানকার খবরাখবর ৭টি সেলের নজরে আনাই এই ‘খোলা হওয়া’র কাজ। সংবাদ সংগ্রহ থেকে ছবি তোলা, লেখা, সম্পাদনা, প্রকাশনা— সবেতেই হাত লাগিয়েছেন জেলের বন্দিরা৷ এই পদ্ধতিতে শুক্রবার সংবাদপত্র ‘খোলা হাওয়া’র ১২টি কপি প্রকাশিত হল। উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে হাজির সংবাদপত্রের সম্পাদকমন্ডলীর সদস্য তথা যাবজ্জীবন সাজাপ্রাপ্ত বন্দি তুষারকান্তি গঙ্গোপাধ্যায় কেঁদে ফেলেন৷ তিনি বলেন ‘আমি একসময়ে শিক্ষক ছিলাম।
তখন স্বপ্ন ছিল, সংবাদপত্র প্রকাশ করব। এখানে বদ্ধজীবনে থেকেও তা সফল হল।’ জেল সুপার দেবাশিস চক্রবর্তী বলেন, ‘বন্দিদের জন্য লেখা, বন্দিদের দ্বারা প্রকাশিত সংবাদপত্রটি এখন সাপ্তাহিক। খুব শীঘ্রই সেটি দৈনিক করা হবে। সংখ্যাও বাড়ানো হবে।’ সূত্র: এবেলা




সর্বশেষ সংবাদ
আরো খবর ⇒
সর্বাধিক পঠিত
 আমাদের পথচলা   |    কাগজ পরিবার   |    প্রতিনিধিদের তথ্য   |    অন লাইন প্রতিনিধিদের তথ্য   |    স্মৃতির এ্যালবাম 
সম্পাদক ও প্রকাশক : মবিনুল ইসলাম মবিন
ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : আঞ্জুমানারা
পোস্ট অফিসপাড়া, যশোর, বাংলাদেশ।
ফোনঃ ০৪২১ ৬৬৬৪৪, ৬১৮৫৫, ৬২১৪১ বিজ্ঞাপন : ০৪২১ ৬২১৪২ ফ্যাক্স : ০৪২১ ৬৫৫১১, ই-মেইল : gramerka@gmail.com, editor@gramerkagoj.com
Design and Developed by i2soft