সম্পাদকীয়
স্বাধীন বাংলাদেশকে প্রথম আন্তর্জাতিক স্বীকৃতির দিন
Published : Tuesday, 5 December, 2017 at 8:28 PM
আজ ৬ ডিসেম্বর। ১৯৭১ সালের এই তারিখে মহান মুক্তিযুদ্ধ চলাকালে স্বাধীন দেশ হিসেবে প্রথম আন্তর্জাতিক স্বীকৃতি পেয়েছিল বাংলাদেশ। দক্ষিণ এশিয়ার দুই দেশ ভারত ও ভুটান এদিন আনুষ্ঠানিকভাবে স্বাধীন ও সার্বভৌম বাংলাদেশকে স্বীকৃতি দান করে। পরে একে একে আরো অনেক দেশই স্বাধীন বাংলাদেশকে স্বীকৃতি দিতে শুরু করে। তবে ১৯৭১ সালে কেবল মাত্র ভারত ও ভুটানের কাছ থেকে স্বীকৃতি পেয়েছিল বাংলাদেশ।  
১৯৭১ সালের ৬ ডিসেম্বর বেলা ১১টায় অল ইন্ডিয়া রেডিওতে প্রচারিত এক ঘোষণা বলা হয়, ভারত বাংলাদেশকে সার্বভৌম রাষ্ট্র হিসেবে স্বীকৃতি দিয়েছে। লোকসভায় (ভারতের পার্লামেন্ট) বিশেষ অধিবেশনে বাংলাদেশকে স্বীকৃতি প্রদানের বিষয়ে প্রস্তাব উত্থাপন করেছিলেন তৎকালীন ভারতীয় প্রধানমন্ত্রী ইন্দিরা গান্ধী।  
প্রস্তাব উত্থাপনকালে ইন্দিরা গান্ধী বলেছিলেন, ‘বাংলাদেশের সব মানুষের ঐক্যবদ্ধ বিদ্রোহ এবং সেই সংগ্রামের সাফল্য এটা ক্রমান্বয়ে স্পষ্ট করে তুলেছে যে তথাকথিত মাতৃরাষ্ট্র পাকিস্তান বাংলাদেশের মানুষকে স্বীয় নিয়ন্ত্রণে ফিরিয়ে আনতে সম্পূর্ণ অসমর্থ। বাংলাদেশ সরকারের বৈধতা সম্পর্কে বলা যায়, গোটা বিশ্ব এখন সচেতন যে তারা জনগণের বিপুল সংখ্যাগরিষ্ঠ অংশের আকাক্সক্ষার প্রতিফলন ঘটায়, জনগণকে প্রতিনিধিত্বকারী অনেক সরকারই যেমনটা দাবি করতে পারবে না। গভর্নর মরিসের প্রতি জেফারসনের বহু খ্যাত উক্তি অনুসারে বাংলাদেশের সরকার সমর্থিত হচ্ছে পরিপূর্ণভাবে প্রকাশিত জাতির আকাঙ্ক্ষা বা উইল অব দ্য নেশন দ্বারা। এই বিচারে পাকিস্তানের সামরিক সরকার, যাদের তোষণ করতে অনেক দেশই বিশেষ উদগ্রীব, এমনকি পন্ডিম পাকিস্তানের জনগণেরও প্রতিনিধিত্ব করে না।’
ভারতের কাছ থেকে স্বীকৃতি পাওয়ার দিনই ভুটানের কাছ থেকে স্বাধীন-সার্বভৌম দেশ হিসেবে স্বীকৃতি পায় বাংলাদেশ। ওই দিন এক তারবার্তায় বাংলাদেশকে স্বাধীন ও সার্বভৌম রাষ্ট্র হিসেবে স্বীকৃতি দেন ভুটানের তৎকালীন রাজা জিগমে দর্জি ওয়াংচুক। তারবার্তায় তিনি বলেছিলেন, ‘বিদেশি দখলদার বাহিনীর বিরুদ্ধে স্বাধীনতা অর্জনের জন্য বাংলাদেশের জনগণের মহান এবং বীরত্বপূর্ণ সংগ্রাম অদূর ভবিষ্যতে সাফল্য লাভ করবে। ভুটানের জনগণ এবং তার প্রত্যাশা, সৃষ্টিকর্তা বর্তমান বিপদ থেকে বঙ্গবন্ধুকে মুক্ত করবেন, যেন তিনি দেশের পুনর্গঠন এবং উন্নয়নের মহান কর্তব্যে দেশ ও দেশের মানুষকে নেতৃত্ব দিতে পারেন।’
ভারত নাকি ভুটান, বাংলাদেশ প্রথম স্বীকৃতি দিয়েছিল কোন দেশ? এ নিয়ে স্বাধীনতা লাভের দীর্ঘ ৪৩ বছর পরও বাংলাদেশিরা বিভ্রান্তিতে ছিল। তবে ২০১৪ সালের ৮ ডিসেম্বর (সোমবার) এক সংবাদ সম্মেলনে তৎকালীন পররাষ্ট্রসচিব মো. শহীদুল হক এ বিভ্রান্তি দূর করেন। তিনি জানান, ভুটানই বাংলাদেশকে প্রথম স্বীকৃতি দিয়েছিল। ভারত ও ভুটান দ্ইু দেশই ১৯৭১ সালের ৬ ডিসেম্বর বাংলাদেশকে স্বীকৃতি প্রদান করে। তবে ভারতের কয়েক ঘণ্টা আগে তারবার্তার মাধ্যমে ভুটান বাংলাদেশকে স্বীকৃতি প্রদান করে।
শহীদুল হক এ সংবাদ সম্মেলন করেছিলেন ভুটানের তৎকালীন প্রধানমন্ত্রী শেরিং তোবগেকে হজরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে বিদায় জানানোর পর। তিনদিনের সফরে বাংলাদেশে এসেছিলেন ভুটানের প্রধানমন্ত্রী। ওই সফরে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার হাতে বাংলাদেশকে দেওয়া ভুটানের স্বীকৃতির তারবার্তাটি তুলে দিয়েছিলেন শেরিং তোবেগ।
মুক্তিযুদ্ধ চলাকালে ভারত ও ভুটানের দেওয়া এ স্বীকৃতি বাংলাদেশের জন্য যথেস্ট গুরুত্বপূর্ণ ছিল। এরই রেশ ধরে আন্তর্জাতিক অঙ্গনে স্বাধীন-সার্বভৌম রাষ্ট্র হিসেবে বাংলাদেশের পথচলার দিন সূচিত হয়।



সর্বশেষ সংবাদ
আরো খবর ⇒
সর্বাধিক পঠিত
 আমাদের পথচলা   |    কাগজ পরিবার   |    প্রতিনিধিদের তথ্য   |    অন লাইন প্রতিনিধিদের তথ্য   |    স্মৃতির এ্যালবাম 
সম্পাদক ও প্রকাশক : মবিনুল ইসলাম মবিন
ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : আঞ্জুমানারা
পোস্ট অফিসপাড়া, যশোর, বাংলাদেশ।
ফোনঃ ০৪২১ ৬৬৬৪৪, ৬১৮৫৫, ৬২১৪১ বিজ্ঞাপন : ০৪২১ ৬২১৪২ ফ্যাক্স : ০৪২১ ৬৫৫১১, ই-মেইল : gramerka@gmail.com, editor@gramerkagoj.com
Design and Developed by i2soft