বুধবার, ১৭ জানুয়ারি, ২০১৮
ক্রীড়া সংবাদ
মহাদেবপুরে জাতীয় পতাকা নিয়ে ডিংগী নৌকা বাইচ প্রতিযোগীতা
মোফাজ্জল হোসেন, নওগাঁ :
Published : Sunday, 31 December, 2017 at 5:13 PM
মহাদেবপুরে জাতীয় পতাকা নিয়ে ডিংগী নৌকা বাইচ প্রতিযোগীতাবিজয়ের চেতনাকে ধরে রাখতে নওগাঁর মহাদেবপুরে জাতীয় পতাকা বহন করে ডিংগী নৌকা বাইচ প্রতিযোগীতা অনুষ্ঠিত হয়েছে। রবিবার দুপুরে উপজেলার আত্রাই নদীর শীবগঞ্জ ঘাটে ‘রেড ফ্রাইডে’ নামে একটি ব্যক্তিগত প্রতিষ্ঠান এর আয়োজন করে। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন স্থাণীয় সাংসদ (নওগাঁ-৩) ছলিম উদ্দিন তরফদার সেলিম।
সাধারনত পানসি নৌকা (বড় নৌকা) দিয়ে নৌকা বাইচ প্রতিযোগীতা হয়ে থাকে। হারিয়ে যাওয়া গ্রাম বাংলার ঐতিহ্যকে ফিরিয়ে আনতে ব্যতিক্রম উদ্যোগে এ ডিংগী নৌকা বাইচ। দেশের প্রতি শ্রদ্ধা ও দেশপ্রেমকে জাগ্রত করে ও যুব সমাজকে উদ্বুদ্ধ করতে প্রতিযোগীতার আয়োজন করা হয়েছে। সুস্থ ধারা সংস্কৃতিকে ধরে আগামীতে এরকম ব্যতিক্রমী আয়োজন করার দাবী জানিয়ে সচেতন মহল।
পরে এক আলোচনা অনুষ্ঠিত হয়। এসময় ‘রেড ফ্রাইডে’ পরিচালক হুসাইন মোহাম্মদ শাহিন এর সভাপতিত্বে বক্তব্য রাখেন, সাবেক মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার বদিউজ্জামান বদি, উপজেলা নিবার্হী কর্মকর্তা মোবারক হোসেন, অফিসার ইনচার্জ মিজানুর রহমান, সদর ইউপি চেয়ারম্যান মাহবুবুর রহমান ধলু, মহাদেবপুর থানা প্রেস ক্লাবে সভাপতি গোলাম রসুল বাবু, এ্যাড. সামিউল নবী সামিম, উত্তরগ্রাম ইউপি চেয়ারম্যান আলহাজ্ব আবিদ সরকার, বিশিষ্ট ব্যবসায়ী মঞ্জুরুল রহমান মাসুদ, মোতাহার হোসেন প্রমূখ।
স্থানীয় রেড ফ্রাইডে’র পরিচালক হুসাইন মোহাম্মদ শাহিন বলেন, বিজয়ের পতাকার প্রতি আমাদের গুরত্ব কম। এ জন্য অনেক কিছুর উন্নয়ন হচ্ছেনা। ডিংগী বাইচ একটি উপলক্ষ। দেশের প্রতি সম্মান জানানোই মূল উদ্যেশ। দেশ প্রেমকে জাগ্রত করতে ডিংগী বাইচ প্রতিযোগীতার আয়োজন করা হয়েছে। ইতিপূর্বে হেলমেড ইস্যু, মাদক বিরোধী সমাবেশ করা হয়েছে।
নওগাঁ-৩ (মহাদেবপুর-বদলগাছী) সংসদ সদস্য ছলিম উদ্দিন তরফদার সেলিম বলেন, বিজয়ে মাসে দিন। ভবিষ্যৎ প্রজন্ম যেন বুঝতে পারে বিজয় মাসে গুরত্ব। লাল সবুজের পতাকার গুরত্ব ভবিষ্যৎ প্রজন্ম অনুপ্রেরনা যোগাবে। আগামীতে এ নৌকা বাইচের ধারা অব্যহৃত রাখতে সহযোগীতা করার আশ্বাস প্রদান করেন তিনি।
প্রতিযোগীতায় কয়েকটি গ্রামের অর্ধশতাধিক নৌকা অংশ নেয়। পরে বিজয়ীদের মাঝে একটি করে মুঠোফোন ও প্রত্যেক অংশগ্রহনকারীদের একটি করে শীতবস্ত্র কম্বল উপহার দেয়া হয়। নৌকা বাইচ দেখতে নদীর দু’পাড়ে হাজারো নারী-পুরুষ ও শিশু-কিশোরে সমাগম হয়।




সর্বশেষ সংবাদ
আরো খবর ⇒
সর্বাধিক পঠিত
 আমাদের পথচলা   |    কাগজ পরিবার   |    প্রতিনিধিদের তথ্য   |    অন লাইন প্রতিনিধিদের তথ্য   |    স্মৃতির এ্যালবাম 
সম্পাদক ও প্রকাশক : মবিনুল ইসলাম মবিন
ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : আঞ্জুমানারা
পোস্ট অফিসপাড়া, যশোর, বাংলাদেশ।
ফোনঃ ০৪২১ ৬৬৬৪৪, ৬১৮৫৫, ৬২১৪১ বিজ্ঞাপন : ০৪২১ ৬২১৪২ ফ্যাক্স : ০৪২১ ৬৫৫১১, ই-মেইল : gramerka@gmail.com, editor@gramerkagoj.com
Design and Developed by i2soft