মঙ্গলবার, ১৬ জানুয়ারি, ২০১৮
অর্থকড়ি
যশোরে উন্নয়ন মেলার প্রেস ব্রিফিংয়ে ত্রাণ সচিব
মেলার মাধ্যমে সেবা প্রদানকারী ও গ্রহিতার মধ্যে যোগসূত্র তৈরি হচ্ছে
কাগজ সংবাদ :
Published : Friday, 12 January, 2018 at 6:15 AM
মেলার মাধ্যমে সেবা প্রদানকারী ও গ্রহিতার মধ্যে যোগসূত্র তৈরি হচ্ছে দূর্যোগ ব্যবস্থাপণা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়ের সচিব মো. শাহ কামাল বলেছেন, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবর রহমান মুক্তিযুদ্ধের মহানায়ক। বঙ্গবন্ধুর স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবসকে কেন্দ্র করে জনগণের জন্যে গৃহিত সরকারের নানা উন্নয়ন কর্মসূচি তুলে ধরতে আয়োজন করা হচ্ছে উন্নয়ন মেলায়। ২০২১ সালের মধ্যে ক্ষুধা ও দারিদ্র্যমুক্ত মধ্যম আয়ের এবং ২০৪১ সালের মধ্যে উন্নত বাংলাদেশ গড়ার লক্ষ্যে শেখ হাসিনা উদ্ভাবিত একটি বাড়ি একটি খামার, কমিউনিটি ক্লিনিক, নারীর ক্ষমতায়ন, সবার জন্য বাসস্থান, শিক্ষা সহায়তা, ডিজিটাল বাংলাদেশ, পরিবেশ সুরক্ষা, বিনিয়োগ বিকাশ, সামাজিক নিরাপত্তা কর্মসূচি, ঘরে ঘরে বিদ্যুৎ এই ১০টি কর্মসূচিকে সর্বোচ্চ অগ্রাধিকার দিয়ে বাস্তবায়ন করছে সরকার। এ সব উদ্যোগকে শেখ হাসিনার বিশেষ উদ্যোগ বলে অভিহিত করা হচ্ছে। মেলার মাধ্যমে  সেবা প্রদানকারী ও সেবা গ্রহিতার মধ্যে যোগসূত্র তৈরি হচ্ছে। বৃহস্পতিবার যশোর কালেক্টরেট সভাকক্ষে উন্নয়ন মেলা বিষয়ক প্রেস ব্রিফিংয়ে এসব কথা বলেন তিনি।
এর আগে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা গণভবন থেকে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে একযোগে দেশের সকল জেলা ও উপজেলায় উন্নয়ন মেলার উদ্বোধন করেন। এ সময় যশোর সদর আসনের সংসদ সদস্য কাজী নাবিল আহমেদ, দূর্যোগ ব্যবস্থাপণা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়ের সচিব মো. শাহ কামাল, অতিরিক্ত সচিব (দূর্যোগ ও ব্যবস্থাপণা কর্মসূচি-২ মো. মহসীন, যুগ্ম সচিব (দূর্যোগ ও ব্যবস্থাপনা কর্মসূচি -১ মো. মোয়াজ্জেম হোসেন, জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি শহিদুল ইসলাম মিলন, সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মেহেদী হাসান মিন্টু, স্থানীয় সরকার বিভাগের উপ-পরিচালক মাজেদুর রহমান খান,অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) হুসাইন শওকত, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (শিক্ষা ও আইসিটি) দেবপ্রসাদ পাল, অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট কেএম মামুন উজ্জামানসহ জেলা প্রশাসন এবং বিভিন্ন সরকারি ও বেসরকারি প্রতিষ্ঠানের কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।
প্রেস ব্রিফিং শেষে কালেক্টরেট চত্বর থেকে বর্ণাঢ্য শোভাযাত্রা বের হয়। শোভাযাত্রাটি প্রধান প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ করে টাউনহল মাঠে উন্নয়ন মেলা প্রাঙ্গণে এসে শেষ হয়।
বিকেল ৪টায় সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানে সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোটের শিল্পী গোষ্ঠী এবং সপ্তসুর, তীর্যক, সুরবিতান, কিংশুকের শিল্পীরা সঙ্গীত পরিবেশন করেন। অনুষ্ঠানে বিবর্তনের শিল্পীরা কবিতা আবৃত্তি এবং ভৈরবের শিল্পীরা নৃত্য পরিবশেন করেন।
বিকেলে উন্নয়ন মেলা পরিদর্শন করেন খুলনা বিভাগীয় কমিশনার লোকমান হোসেন মিয়া। সন্ধ্যায় টাউন হল মাঠের রওশন আলী মঞ্চে ‘বঙ্গবন্ধুর উন্নয়ন দর্শন ও আজকের বংলাদেশ’ শীর্ষক আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। সভায় প্রধান অতিথি ছিলেন দূর্যোগ ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়ের সচিব মো. শাহ্ কামাল। সভাপতিত্ব করেন যশোরের জেলা প্রশাসক আশরাফ উদ্দিন। বিশেষ অতিথি ছিলেন যশোরের পুলিশ সুপার আনিসুর রহমান, জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি শহিদুল ইসলাম মিলন, সাধারণ সম্পাদক শাহীন চাকলাদার, পৌর মেয়র জহিরুল ইসলাম চাকলাদার রেন্টু ও প্রেসক্লাব যশোরের সভাপতি জাহিদ হাসান টুকুন। আলোচনা সভার শেষে ডায়মন্ড ক্লাবের শিল্পীরা নাটকে অংশগ্রহণ করেন।
মেলায় জেলা প্রশাসন, সদর উপজেলা প্রশাসন, বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর যশোর সেনানীবাস, বাংলাদেশ বিমান বাহিনীর যশোর মতিউর রহমান ঘাঁটি, বাংলাদেশ পুলিশ যশোর,মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তর, ফায়ার সার্ভিস এন্ড সিভিল ডিফেন্স, জেলা ত্রাণ ও দূর্যোগ ব্যবস্থাপনা,সিভিল সার্জনের কার্যালয়, পরিবার পরিকল্পনা অধিদপ্তর, ঔষধ প্রশাসন অধিদপ্তর, যশোর পৌরসভা, বাংলাদেশ রেলওয়ে, সড়ক ও জনপথ, পানি উন্নয়ন বোর্ড, বিদ্যুৎ বিক্রয় ও বিপণন বিভাগ এবং ওজোপাডিকো,শিক্ষা প্রকৌশল অধিদপ্তর, জনস্বাস্থ্য প্রকৌশল অধিদপ্তর, স্থানীয় সরকার প্রকৌশল অধিদপ্তর, বিআরটিএ, কাস্টমস ও ভ্যাট, কর বিভাগ,ব্যাংক সমূহ, হাউজ বিল্ডিং ফাইন্যান্স কর্পোরেশন, জেলা জনশক্তি ও কর্মসংস্থান ব্যুরো, যশোর টেকনিক্যাল ট্রেনিং সেন্টার, যুব উন্নয়ন অধিদপ্তর, জেলা সমবায় অফিস, সামাজিক বন বিভাগ ও পরিবেশ অধিদপ্তর, কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর, পাট অধিদপ্তর, জেলা মৎস্য অফিস, মৎস্য গবেষণা ইনস্টিটিউট, জেলা প্রাণি সম্পদ অফিস, জেলা শিক্ষা অফিস, মহিলা বিষয়ক অধিদপ্তর, জাতীয় মহিলা সংস্থা, শিশু একাডেমী, শিল্পকলা একাডেমী, জেলা ক্রীড়া সংস্থা, সমাজসেবা অধিদপ্তর, জেলা প্রতিবন্ধী ফাউন্ডেশন, বিআরডিবি, জেলা পরিসংখ্যান অফিস, জেলা হিসাব রক্ষণ অফিস, জেলা পাসপোর্ট অফিস, জেলা নির্বাচন অফিস, জেলা তথ্য অফিস, পল্লী বিদ্যুৎ সমিতি-১, বিসিক শিল্প সহায়ক কেন্দ্র, ডাক বিভাগ,ইসলামিক ফাউন্ডেশন,কলকারখানা প্রতিষ্ঠান পরিদর্শন কার্যালয়, ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তর, নগর উন্নয়ন অধিদপ্তর, বীমা উন্নয়ন কর্তৃপক্ষ, যশোর কেন্দ্রীয় কারাগার, জেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিস, গণপূর্ত অধিদপ্তর, বিটিসিএল, মুক্তিযোদ্ধা সংসদ, জেলা খাদ্য অফিস, বেসরকারি সংস্থা উলাসী সৃজনী সংঘ, আরআরএফ, ব্র্যাক, রাইটস যশোর, সেভিয়ার, ঢাকা আহ্ছানিয়া মিশন ও শিশু নিলয় তাদের উন্নয়ন কর্মসূচি মেলায় প্রদর্শন করছেন। মেলা চলবে আজ এবং কাল। প্রতিদিন সকাল ১০টা থেকে রাত অবধি মেলা চলবে।




সর্বশেষ সংবাদ
আরো খবর ⇒
সর্বাধিক পঠিত
 আমাদের পথচলা   |    কাগজ পরিবার   |    প্রতিনিধিদের তথ্য   |    অন লাইন প্রতিনিধিদের তথ্য   |    স্মৃতির এ্যালবাম 
সম্পাদক ও প্রকাশক : মবিনুল ইসলাম মবিন
ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : আঞ্জুমানারা
পোস্ট অফিসপাড়া, যশোর, বাংলাদেশ।
ফোনঃ ০৪২১ ৬৬৬৪৪, ৬১৮৫৫, ৬২১৪১ বিজ্ঞাপন : ০৪২১ ৬২১৪২ ফ্যাক্স : ০৪২১ ৬৫৫১১, ই-মেইল : gramerka@gmail.com, editor@gramerkagoj.com
Design and Developed by i2soft